ইয়াওমুল ইসনাইন (সোমবার), ৩০ মার্চ ২০২০

ইতালিতে শুধু লাশ আর লাশ

আড়াই মিনিটে একজন মারা যাচ্ছে ইতালিতে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : হাসপাতাল থেকে মর্গ। রাস্তা থেকে কবরস্থান। সবখানে শুধু লাশের সারি। বলতে গেলে, জনমানবশূন্য ইতালির পথে পথে প্রতিদিনের দৃশ্য এখন এটাই। পার্থক্য যা, সেটা সংখ্যায়। যে সংখ্যা কমছে না, বেড়েই চলেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে দেশটিতে মৃত্যু হয়েছে ৪৭৫ জনের। একদিনে মৃত্যুর নতুন রেকর্ড এটা।

মৃত্যুর এই রেকর্ডে ইতালিতে কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মোট মৃত্যুর সংখ্যা ২ হাজার ৯৭৮ জন। কোনো কিছুতেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে না পারা দেশটির সরকার তবুও সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। জনগণের সুরক্ষায় জরুরি অবস্থা অব্যাহত রেখেছে।

লোম্বারদিয়া ইতালির একটা প্রদেশ। সেখানে সবচেয়ে মারাত্মক আকার ধারণ করেছে করোনা ভাইরাস। শুধু এই প্রদেশেই মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৯৫৯ জনের। আর গত ২৪ ঘণ্টায় সেখানে রেকর্ড ৩১৯ জন মানুষ মারা গেছে।

দেশটিতে বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত এই ভাইরাসে মোট আক্রান্ত ৩৫ হাজার ৭১৩ জন। তবে তাদের মধ্যে ৪ হাজার রোগী সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন।লোম্বারদিয়া প্রদেশ ছাড়াও ইতালির বেরগামো ও লদি এলাকার অবস্থাও শোচনীয়। এই দুই এলাকার কবরস্থানগুলোতে লাইন দিয়ে দাঁড়িয়ে আছে লাশবাহী অসংখ্য গাড়ি।

করোনার প্রকোপ থেকে বাঁচতে দেশটির প্রায় ছয় কোটি মানুষকে গৃহবন্দি রাখা হয়েছে। যাদের মধ্যে অন্তত দেড় লাখ বাংলাদেশিও আছেন।

কিন্তু জারি করা জরুরি অবস্থার মধ্যে বেড়ে চলেছে বেকারত্বের সংখ্যা। গোটা ইতালি যেন এখন থমকে আছে। অর্থনৈতিক পরিস্থিতিও চরম হুমকির মধ্যে।

দেশটিতে কোনো পর্যটক প্রবেশ করতে পারছেন না। সরকারের কঠোর নির্দেশ, অতি প্রয়োজন ছাড়া কেউ যেন ঘর থেকে বাইরে বের না হয়।

এরই মধ্যে গত এক সপ্তাহে অপ্রয়োজনে বাইরে ঘোরাফেরা দায়ে ৪৩ হাজার লোকের বিরুদ্ধে মামলা করেছে ইতালির নিরাপত্তা বাহিনী।

Facebook Comments