ইয়াওমুস ছুলাছা (মঙ্গলবার), ১২ নভেম্বর ২০১৯

মাছের বাম্পার আহরণ কাপ্তাই হ্রদে

মাছের বাম্পার আহরণ কাপ্তাই হ্রদে

নিউজ ডেস্ক : মাত্র এক মাসে রাঙামাটি কাপ্তাই হ্রদে মাছের বাম্পার আহরণ হয়েছে। ছাড়িয়েছে রাজস্ব আয়ের রেকর্ড। বৃদ্ধি পেয়েছে সব ধরনের মাছের উৎপাদন। গত বছরের তুলনায় এ বছর রাজস্ব আদায় হয়েছে প্রায় দ্বিগুণের মতো।

বিএফডিসি জানিয়েছে, গেল মাসে রাঙামাটি কাপ্তাই হ্রদ থেকে মাছ আহরণ করা হয় প্রায় ১৫০ মেট্রিক টন। আর রাজস্ব আদায় হয় প্রায় ২ কোটি ৭১ লাখ ৭৯ হাজার ৫৫৫ টাকা। যা গত বছরের তুলনায় অনেক বেশি। এভাবে মাছ উৎপাদন অব্যাহত থাকলে এ বছর রাজস্ব আয় অতীতের সব রেকর্ড ভঙ্গ করবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। এ ব্যাপারে কথা হয় রাঙামাটি ফিশারি ঘাটের মৎস্য ব্যবসায়ীদের সঙ্গে।

ব্যাবসায়ীরা জানান, হ্রদে মাছ উৎপাদন স্বাভাবিক থাকলে মাছের ওপর নির্ভরশীল লাখো মানুষের দারিদ্র্য দূর হতে খুব একটা সময় লাগবে না। মৎস্য উন্নয়ন করপোরেশন রাঙামাটি জেলা ব্যবস্থাপক লে. কমান্ডার এম তৌহিদুল ইসলাম এ কথা জানিয়েছেন, রাঙামাটি কাপ্তাই হ্রদে মাছের সুষ্ঠু প্রাকৃতিক প্রজনন, বংশবিস্তারের কারণে বাম্পার আহরণ করা সম্ভব হয়েছে বলে যানা গেছে। তবে তার জন্য বিএফডিসির সব কর্মকর্তাকে কঠোর পরিশ্রম করতে হয়েছে। যার সুফল এখন মৎস্যজীবীরা নিজেরাই ভোগ করছেন।

এখানে ৬৬টি দেশীয় প্রজাতির ও ৬টি বহিরাগত প্রজাতির মাছ পাওয়া যায়। প্রতিবছর রাঙামাটি কাপ্তাই হ্রদ থেকে প্রায় ১০ হাজার ৫০০ মেট্রিক টন মাছ আহরিত হয়। যা ক্রমে প্রতিবছর বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই এ হ্রদে মাছের প্রাকৃতিক প্রজনন ধরে রাখতে বিএফডিসি বিভিন্নভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

Facebook Comments