ইয়াওমুস ছুলাছা (মঙ্গলবার), ১৫ অক্টোবর ২০১৯

মোবাইলে টাকা পাঠাতে পারবেন প্রবাসীরা

মোবাইল ব্যাংকিং

মাস্টার কার্ড, ওয়েস্টার্ন ইউনিয়ন ও বিকাশ যৌথভাবে আজ রোববার মুঠোফোনে প্রবাসী-আয় বা মানি ট্রান্সফার সেবা চালু করেছে। এতে প্রবাসী বাংলাদেশিরা দেশে তাঁদের স্বজনকে সরাসরি মুঠোফোনে টাকা পাঠাতে পারবেন।

রোববার মাস্টারকার্ড, ওয়েস্টার্ন ইউনিয়ন, ব্র্যাক ব্যাংক ও বিকাশ যৌথভাবে প্রবাসী আয় স্থানান্তরের এই সেবা চালু করেছে। এই সেবার আওতায় বিকাশ অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে কোনো গ্রাহক প্রতিবার সর্বোচ্চ ৩৫ হাজার টাকা করে পাঁচ বারে দিনে সর্বোচ্চ একলাখ ১৫ হাজার টাকা পাঠাতে পারবেন। এভাবে মাসে সর্বোচ্চ ২০টি লেনদেনে সর্বোচ্চ একলাখ ৫০ হাজার টাকা পাঠানো যাবে।

আজ রাজধানীর একটি হোটেলে এই সেবার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। প্রতিমন্ত্রী বলেন, “আর্থিক লেনদেনের ধরন আপনারা বদলে ফেলেছেন। মানুষ এখন বলে ‘আমাকে বিকাশ কর’, ‘আমার কাছে পাঠাও’ বলে না।”

বাংলাদেশের অর্থনীতিতে প্রবাসী আয়ের বড় অবদান রয়েছে, যা জিডিপির ১০ শতাংশ। অনন্য এই উদ্যোগের মাধ্যমে ৮০ লাখ প্রবাসী বাংলাদেশি লাভবান হবে বলে মন্তব্য করেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী।

প্রায় ১২ কোটি মানুষ বাংলাদেশে মোবাইল ফোন ব্যবহার করে, যার মধ্যে ২ কোটি ২০ লাখ মানুষের বিকাশ অ্যাকাউন্ট আছে। আর দেশজুড়ে বিকাশের একলাখ ২০ হাজার  এজেন্ট আছে।

ওয়েস্টার্ন ইউনিয়নের মাধ্যমে বিকাশের এই সেবার আওতায় ২৪ ঘণ্টা এজেন্টদের কাছ থেকে টাকা তুলতে পারবেন গ্রাহকরা। অথবা তা না করে এই টাকা সরাসরি অন্য কারও অ্যাকাউন্টে পাঠানো, মোবাইল রিচার্জ, বিল পরিশোধ ও দোকানে কেনাকাটার কাজেও ব্যবহার করা যাবে।

এই টাকা তুলতে গ্রাহককে ওয়েস্টার্ন ইউনিয়নের রেফারেন্স নম্বর, টাকার পরিমাণ ও পিন নম্বর মোবাইলে প্রবেশ করাতে হবে। মাস্টারকার্ডের নিরাপদ পরিশোধ প্রযুক্তিতে উত্তোলনের অনুরোধ সফল হওয়ার পর ওই টাকা বিকাশ অ্যাকাউন্টে চলে আসবে।

Facebook Comments