সাবত (শনিবার), ২২ জুন ২০২৪

সমাবেশের অনুমতি পেল ঐক্যফ্রন্ট

সিলেটে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশের অনুমতি দিয়েছে মহানগর পুলিশ। আজ রোববার বিকেলে ঐক্যফ্রন্টের সিলেট কর্মসূচির সমন্বয়ক ও জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদকে টেলিফোন করে সমাবেশের অনুমতি দেওয়ার বিষয়টি পুলিশ জানিয়েছে।

২৪ অক্টোবর সিলেট নগরের রেজিস্টারি মাঠে এই সমাবেশ হওয়া কথা রয়েছে।
আলী আহমদ জানান, সমাবেশের জন্য ঐক্যফ্রন্টের পক্ষ থেকে তিনি স্বাক্ষর করে পুলিশকে অবহিতকরণপত্র দিয়েছিলেন। অনুমতি না পাওয়ায় এ ব্যাপারে উচ্চ আদালতে একটি রিট করেন তিনি। রিট করার প্রায় দুই ঘণ্টা পর বিকেল সাড়ে চারটার দিকে সিলেট মহানগর পুলিশের (এসএমপি) পক্ষ থেকে সমাবেশের অনুমতি দেওয়ার বিষয়টি জানানো হয়।

আলী আহমদ বলেন, ‘সমাবেশ করতে অনুমতির বিষয়টি আমাদের ফোনে জানানো হলেও আমরা এ বিষয়ে পুলিশের কাছ থেকে লিখিত কপি সংগ্রহ করব।’

এ ব্যাপারে আজ সন্ধ্যায় যোগাযোগ করলে সিলেট মহানগর পুলিশের কমিশনার গোলাম কিবরিয়া সিলেটে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ করার অনুমতি দেওয়ার বিষয়টি প্রথম আলোকে নিশ্চিত করেন। আগের দিন সমাবেশের অনুমতি না দিয়ে এক দিন পর অনুমতি দেওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমরা বিষয়টি ভেবে দেখেছি, এরপর অনুমতি দিয়েছি।’

ঐক্যফ্রন্টের সিলেট কর্মসূচি সমন্বয়ের দায়িত্বে থাকা বিএনপির নেতারা জানান, সিলেট নগরের রেজিস্টারি মাঠে ২৩ অক্টোবর বেলা একটায় সমাবেশের জন্য পুলিশকে অবহিতকরণপত্র দেওয়া হয়েছিল ১৭ অক্টোবর। পুলিশ এই চিঠি পেয়ে পরদিন সমাবেশের অনুমতি নেই বলে জানিয়েছিল। ওই দিন জেলা ও নগর বিএনপির প্রস্তুতি সভা করার ক্ষেত্রে পুলিশ নিষেধ করে। এরপর সমাবেশের তারিখ এক দিন পিছিয়ে ২৪ অক্টোবর বেলা দুইটায় সমাবেশ করার জন্য পুলিশকে অবহিতপত্র দেওয়া হলে পুলিশ নিরাপত্তাজনিত কারণে অনুমতি নেই জানিয়ে দিয়েছিল।

এদিকে সিলেটে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ করার জন্য দুই দফা তারিখ বদল ও পুলিশকে দুবার অবহিতকরণপত্র দিয়ে অনুমতি না পাওয়ায় বিএনপির নেতা-কর্মীদের মধ্যে হতাশা দেখা দিয়েছিল। জেলা ও নগর বিএনপির দায়িত্বশীল দুজন নেতা জানিয়েছেন, সমাবেশ না করতে পারলেও ঐক্যফ্রন্টের কেন্দ্রীয় নেতাদের সিলেট সফর সফল করার প্রস্তুতি নিয়েছিল বিএনপি। এ নিয়ে আইনি লড়াই চালানোর পরপরই পুলিশ আর বাধা না দেওয়ায় নেতা-কর্মীদের মধ্যে উৎসাহ দেখা দিয়েছে।

রাত থেকে সমাবেশ সফলের প্রস্তুতি শুরু করে দেওয়া হয়েছে জানিয়ে মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আজমল বখত চৌধুরী বলেন, ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রথম কর্মসূচি হচ্ছে এটি। শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ সফলের সর্বাত্মক চেষ্টা থাকবে আমাদের।

Facebook Comments Box