ইয়াওমুল ইসনাইন (সোমবার), ১৮ অক্টোবর ২০২১

দুই কোরিয়ার মধ্যে ফের হটলাইন চালু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: উত্তর ও দক্ষিণ কোরিয়ার মধ্যে ফের হটলাইন চালু হয়েছে। গত আগস্টে উত্তর কোরিয়া হটলাইন বন্ধ করে দিয়েছিল। তবে উত্তর কোরিয়া ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালিয়ে যাচ্ছে।

দুই কোরিয়ার মধ্যে সম্পর্কের উন্নতির জন্য হটলাইন চালু করা হয়েছিল। গত আগস্টে যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়ার যৌথ সেনা মহড়ার সময় উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রপ্রধান কিম জং উন সেই হটলাইন বন্ধ করে দেন। ফের তা চালু হলো।

উত্তর কোরিয়ার আহ্বানেই ফের হটলাইন শুরু হলো বলে দাবি সংবাদসংস্থা এএফপির।

২০১৮ সালে উত্তর এবং দক্ষিণ কোরিয়ার মধ্যে প্রথম হটলাইন চালু হয়েছিল। তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যস্থতায় দুই দেশের মধ্যে শান্তি আলোচনা শুরু হয়েছিল। ট্রাম্প নিজেও কথা বলেছিলেন কিমের সঙ্গে। আলোচনা এগোয়নি। তবে হটলাইনে দুই দেশের মধ্যে বিবিধ বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে। কিন্তু কিছুদিনের মধ্যেই উত্তর কোরিয়া হটলাইন বন্ধ করে দেয়। অভিযোগ, বেলুনের মাধ্যমে দক্ষিণ কোরিয়া উত্তর কোরিয়ায় প্রোপাগান্ডা লিফলেট পাঠিয়েছিল।

এরপর গত জুলাই মাসে ফের দুই দেশের হটলাইন চালু হয়। কিন্তু আগস্টেই তা বন্ধ করে দেয় উত্তর কোরিয়া। এবার কিমের উদ্যোগেই ফের তা চালু হলো।

সম্প্রতি উত্তর এবং দক্ষিণ কোরিয়ার সম্পর্ক তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে। যুক্তরাষ্ট্রসহ একাধিক দেশ উত্তর কোরিয়ার সাম্প্রতিক কার্যকলাপ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। আরও নতুন নিষেধাজ্ঞা জারির পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

অভিযোগ উঠেছে, একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করছে উত্তর কোরিয়া। দক্ষিণ কোরিয়া প্রতিটি ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার দিকে নজর রাখছে। তারই মধ্যে ফের হটলাইন খোলা তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

সূত্র: এএফপি, ডয়েচে ভেলে।

Facebook Comments Box