ইয়াওমুল আহাদ (রবিবার), ১৩ জুন ২০২১

ডিসেম্বরে রেমিটেন্স বেড়েছে ১৪ শতাংশ

চলতি অর্থবছরের ডিসেম্বর মাসে ব্যাংকিং চ্যানেলের মাধ্যমে প্রবাসী-আয় বা রেমিটেন্স এসেছে ১৩০ কোটি ৭৮ লাখ মার্কিন ডলার। যা তার আগের মাস নভেম্বরের চেয়ে ১৬ কোটি ৫৩ লাখ ডলার বা ১৪ দশমিক ৪৭ শতাংশ বেশি।

রোববার বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রানীতি বিভাগের সর্বশেষ হালনাগাদ প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা যায়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ তথ্যে দেখা যায়, চলতি বছরের নভেম্বরের তুলনায় ডিসেম্বরে ১৬ কোটি ৫৩ লাখ ডলার রেমিটেন্স বেশি এসেছে। যা গত বছরের একই সময়ের তুলনায় ৩ কোটি ডলার বেশি। চলতি অর্থবছরের নভেম্বরে ও গত বছরের ডিসেম্বরে রেমিটেন্স এসেছিল যথাক্রমে ১১৪ কোটি ২৪ লাখ ও ১২৭ কোটি ৫০ লাখ মার্কিন ডলারের সমপরিমান।

এ নিয়ে চলতি ২০১৫-১৬ অর্থবছরের প্রথম ছয় মাসে (জুলাই-ডিসেম্বর) প্রবাসীদের পাঠানো মোট রেমিটেন্সের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৭৪৭ কোটি ৯৩ লাখ ডলার। যা আগের অর্থবছরের একই সময়ে ছিল ৭৪৮ কোটি ৭১ লাখ মার্কিন ডলার।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, ডিসেম্বরে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে রেমিটেন্স এসেছে ৩৯ কোটি ৩০ লাথ মার্কিন ডলার। বেসরকারি বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে রেমিটেন্স এসেছে ৮৮ কোটি ৩৯ লাখ মার্কিন ডলার। বিদেশি ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে এসেছে ১ কোটি ৭৭ লাখ মার্কিন ডলার। বিশেষায়িত ব্যাংকের মাধ্যমে এসেছে ১ কোটি ৩০ লাখ মার্কিন ডলারের সমপরিমান রেমিটেন্স।

বরাবরের মতোই নভেম্বরেও সব চেয়ে বেশি রেমিটেন্স পাঠিয়েছে বেসরকারি ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডের মাধ্যমে। ব্যাংকটির মাধ্যমে রেমিটেন্স এসেছে ৩২ কোটি ১২ লাখ মার্কিন ডলার। দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানে থাকা দুটি ব্যাংকের মধ্যে আছে রাষ্ট্রায়ত্ত অগ্রণী ও সোনালী ব্যাংক যাদের মাধ্যমে রেমিটেন্স এসেছে ১৩ কোটি ৯১ লাখ ও ১২ কোটি ৬৬ লাখ মার্কিন ডলার।

বিডিবিএল, রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক, মধুমতি, হাবিব ব্যাংক ও সিটি ব্যাংক এন এ-ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে কোনো রেমিটেন্স দেশে আসেনি।

বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রানীতি বিভাগের হালনাগাদ পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, গত ২০১৪-১৫ অর্থবছরের প্রবাসীরা মোট ১ হাজার ৫৩১ কোটি ৬৯ লাখ মার্কিন ডলারের সমপরিমাণ রেমিটেন্স দেশে পাঠিয়েছেন। এর আগের ২০১৩-১৪ অর্থবছরের প্রবাসীরা পাঠিয়েছিল ১ হাজার ৪২২ কোটি ৮৩ লাখ মার্কিন ডলারের সমপরিমাণ রেমিটেন্স। ২০১২-১৩ অর্থবছরের প্রবাসীরা মোট ১ হাজার ৪৪৬ কোটি ১১ লাখ মার্কিন ডলারের সমপরিমাণ রেমিটেন্স দেশে পাঠিয়েছেন। প্রসঙ্গত, বর্তমানে ১৫৭টি দেশে ৮৫ লাখের বেশি বাংলাদেশি কর্মরত আছেন।

Facebook Comments Box